খেয়ালবশে মুজিবকে মুক্তি দেয়া যায়না – ইয়াহিয়া

Posted on Posted in 7

৭.৯৪.২১২

শিরোনাম :৯৪। খেয়ালবশে মুজিবকে মুক্তি দেয়া যায় না : ইয়াহিয়া

সূত্র: দৈনিক পাকিস্তান

তারিখ: ৩রা নভেম্বর,১৯৭১

খেয়ালবশে মুজিবকে মুক্তি দেয়া যায় না: ইয়াহিয়া

নিউইয়র্ক, ২রা নভেম্বর ( এএফপি) – প্রেসিডেন্ট জে: এ এম ইয়াহিয়া খান বলেছেন,পাকিস্তান ও ভারতের মধ্যে যুদ্ধ আসন্ন এবং চীন তার ( পাকিস্তানের) সশস্ত্র বাহিনীকে সবরকম অস্ত্রশস্ত্র ও গোলাবারুদ  সরবরাহ করবে।তিনি বলেছেন,জাতি তার মুক্তি দাবী করলে তিনি শেখ মুজিবর রহমানকে মুক্তি দিবেন।

নিউজউইক ম্যাগাজিনের প্রতিনিধির সাথে বিশেষ সাক্ষাৎকারে প্রেসিডেন্ট এসব কথা বলেছেন।ইয়াহিয়া খান বলেন,যুদ্ধ (ভারতের সাথে) যে আসন্ন এ কথা না বলার কোন কারন নেই।কেননা তা আসন্ন।ভারতীয়রা আমাদের সাথে যুদ্ধ শুরুই করে দিয়েছে।সার্বিক মোকাবেলা হচ্ছেনা,কারন আমরা পাল্টা আঘাত হানছি না।

তিনি বলেন,উত্তপ্ত পরিস্থিতির আরো সম্প্রসারণ ঘটুক তা তিনি চান না।তবে একটা এলাকা দখল করে সেখানে ক্রীড়ানক বাংলাদেশ সরকারকে বসানোর জন্যে ভারত যদি উত্তেজনার প্রসার ঘটায় সেটা হবে যুদ্ধ।আর অবস্থা যদি তাই দাড়ায় চীন পাকিস্তানের উপর আক্রমণ সহ্য করবে না।প্রত্যক্ষ হস্তক্ষেপ ছাড়া আমরা প্রয়োজনীয় অস্ত্রশস্ত্র ও গোলাবারুদ পাবো।

পূর্ব পাকিস্তানের দাবী প্রসঙ্গে প্রেসিডেন্ট বলেন, আমাদের যে সময় নষ্ট হয়েছে তা পূরণ করার চেষ্টা করছি।২০ শে ডিসেম্বর শাসনতন্ত্র জারী করা হবে।আর এটা খুবই স্বাভাবিক যে পূর্ব পাকিস্তান প্রতিরক্ষা,পররাষ্ট্র ও কর ধার্যের বিষয় ছাড়া সব ক্ষেত্রে সর্বাধিক স্বায়ত্বশাসন ভোগ করবে।

শেখ মুজিব প্রসঙ্গে প্রেসিডেন্ট বলেন,মুজিব যদি এখন পূর্ব পাকিস্তানে ফিরে যান,তার লোকেরাই তাকে মেরে ফেলবে।কেননা,তারা তাদের সকল দুর্ভোগের জন্যে তাকেই দায়ী করছে।খেয়ালের বশে আমি তাকে মুক্তি দিতে পারি না। তবে জাতি যদি তার মুক্তি চায়-আমি তাকে মুক্তি দেবো।