বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি শেখ মুজিবুর রহমানের বিচারের বিরুদ্ধে বৃটেনের পত্রপত্রিকায় প্রতিবাদ প্রকাশনার আহবান

Posted on Posted in 4

<৪,২৭২,৬২৬>

অনুবাদকঃ নাজিয়া বিনতে রউফ

শিরোনামসূত্রতারিখ
২৭২। বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি শেখ মুজিবুর রহমানের বিচারের বিরুদ্ধে বৃটেনের পত্রপত্রিকায় প্রতিবাদ প্রকাশনার আহবানবাংলাদেশ ছাত্র সংগ্রাম পরিষদ১৩ আগস্ট, ১৯৭১

 

বাংলাদেশ ছাত্র সংগ্রাম পরিষদ গ্রেট বৃটেন

৩৪ গ্যামেজ বিল্ডিং

১২০ হই বর্ন, লন্ডন ইসিআই

ফোন ০১-৪০৫৫৯১৭

সভাপতি/সম্পাদক/আহবায়ক

 

 

 

তারিখঃ ১২-০৮-১৯৭১

 

 

প্রিয় স্যার/ম্যাডাম,

 

 

 আপনি জানেন যে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের রাষ্ট্রপতি শেখ মুজিবুর রহমানকে অবৈধভাবে পশ্চিম পাকিস্তানে আটকে রাখা হয়েছে। ইয়াহিয়া খানের সামরিক জান্তা ষড়যন্ত্র করছে তাকে শেষ করে দেয়ার ও প্রচ্ছদ কাহিনী বানানোর যে তাকে ক্যামেরার সামনে সামরিক ট্রাইব্যুনাকে বিচার করা হবে।

 

 জনগণকে মৌখিক ও লিখিতভাবে এই বিচারের ফলাফল সম্পর্কে আমাদের সতর্ক করতে হবে।

 

 আমাদের রাষ্ট্রপতির মুক্তির চেষ্টা করতে ও মুক্তি নিশ্চিত করতে বিশ্বের কাছে আমাদের আবেদন করতে হবে।

 

 এই চিন্তা মাথায় রেখে আমরা টাইমস’এর ১৬ আগস্ট, ১৯৭১ এর সংখ্যার একটি পূর্ণ পৃষ্ঠা বিজ্ঞপ্তি প্রদর্শন সংযুক্ত করার পরিকল্পনা করেছি।

 

 এই দেশে অবস্থানরত বাংলাদেশ সংগ্রাম পরিষদের সকল সদস্যের নাম ও ঠিকানা উক্ত বিজ্ঞপ্তিতে সংযুক্ত করার প্রস্তাব করছি আমরা। আমরা আরও প্রস্তাব করছি যে সকল সংগ্রাম পরিষদের একসাথে ২৬০০.০০(দুই হাজার ছয়শ পাউন্ড)খরচ বহন করতে হবে।

 

 সম্প্রতি টাইমসে প্রকাশিত তথাকথিত পাকিস্তান সংহতি সংঘের বিজ্ঞাপনের একটা পাল্টা জবাব দেবে এই প্রস্তাবিত বিজ্ঞাপনটি।

 

 আমরা আরও প্রস্তাব করেছি যে ব্যয় বহনের জন্যে প্রত্যেক কমিটিকে ন্যূনতম £৩০(ত্রিশ পাউন্ড মাত্র) চাঁদা দিতে হবে।যদি আপনার কমিটি উপরোক্ত প্রস্তাবসমূহে রাজী থাকে তবে অবশ্যই এখুনি ফোন করে নিশ্চিত করুন (অফিস ০১-৪০৫-৫৯১৭, সন্ধ্যা ০১-৬৭৩-৫৭২০) ও যত শীঘ্র আপনার পক্ষে সম্ভব হয় চাঁদা বাংলাদেশ ছাত্র সংগ্রাম পরিষদে পাঠিয়ে দিন।

 

 আমরা বাংলাদেশ সরকারের বিশেষ দূত বিচারপতি জনাব আবু সায়িদ চৌধুরীর সাথে পরিকল্পনা নিয়ে আলোচনা করেছি।

জয় বাংলা

 

 

 এ জেড এম হোসাইন

আহবায়ক