আশফাকুল ইসলাম তন্ময়

Posted on Posted in 8

আমার আব্বু একজন মুক্তিযোদ্ধা। ছোটবেলা থেকেই মুক্তিযুদ্ধ সম্পর্কে অনেক কিছুই শুনেছি, মনে মনে ইচ্ছে ছিল আব্বুর মত রক্ত ঝরানোর মত সুযোগ না হলেও যদি নিজের ঘামের বিনিময়ে দেশের জন্যে কিছু করতে পারি, তবে নিজেকে সার্থক মনে হবে। অনেক সময় অনেকের সাথে কথা বলতে গিয়ে মুক্তিযুদ্ধ নিয়ে কোন প্রামাণ্য দলিল দিতে পারতাম না। সবই যে কানে শুনা কাহিনি। তাই ভ্যালিড রেফারেন্সের অভাব বোধ করতাম। হঠাৎ করেই সুযোগ এসে গেল। ইঞ্জিনিয়ার লিও ভাইয়ার সাথে পরিচয় হওয়ার পর জানলাম মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাসের একটা অনলাইন সংগ্রহশালার কাজ চলছে যেটার শুরু ব্যক্তিগত টাইমলাইনে, এরপর ফেসবুক পেজ। সবশেষে ওয়েবসাইট বানানো হবে। সেখানে থাকবে বিভিন্ন সোর্স থেকে পাওয়া তথ্য প্রমান যেটা যেকোনো কারো জন্যে খুবই হেল্পফুল হবে। নতুন প্রজন্ম জানতে পারবে মুক্তিযুদ্ধের সঠিক তথ্য। এক মুহূর্তও দেরি না করে কাজে নেমে পড়লাম। কাজ করতে গিয়ে যুদ্ধের সময়কার ভয়াবহতার এবং বীরত্বের কথা জেনে রক্ত গরম হয়ে উঠেছে বারবার। ভবিষ্যতে স্বপ্ন দেখি নতুন প্রজন্ম জানবে তাদের শিকড়ের কথা, যে মুক্ত নিঃশ্বাস নিচ্ছে সে মুক্ত নিঃশ্বাসের অধিকার অর্জনের কথা, এই বাংলা মায়ের জন্মকথা… বাংলাদেশ স্বাধীনতা যুদ্ধঃ দলিলপত্র থেকে বলছি।