2

সোহরাওয়ার্দী গ্রেপ্তারে ছাত্র সমাজের প্রতিবাদঃ ঘটনা সম্পর্কে সরকারী প্রেসনোট

<2.019.134>

জনাব সোহরাওয়ার্দী যিনি বর্তমানে অবলুপ্ত আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠাতা বর্তমান সরকারের EBDO এর অধীনে চেষ্টা করেছিলেন।  EBDO এর নিয়মের অধীনে তাকে ছয় বছর  একটি নির্দিষ্ট সময়ের জন্য কোন পদে অধিষ্ঠিত হওয়া থেকে তাকে বিরত রাখা হয়েছে (উদ্ধৃতাংশ)।

সরকার গ্রেফতারের ব্যাখ্যা করেছে

পাকিস্তান সরকার পাকিস্তান সুরক্ষা আইনের  অধীনে  জনাব এইচ এস সোহরাওয়ার্দীর গ্রেপ্তার ও আটক করেছে, যা দেশের বৃহত্তর স্বার্থে বাধ্য হয়ে করা হয়েছে বলে পাকিস্তান সরকার কর্তৃক ইস্যুকৃত প্রেসনোটে বলা হয়।

এটা ইতিমধ্যে সর্বজনবিদিত যে জনাব সোহরাওয়ার্দী  পাকিস্তানের জন্মলগ্ন  থেকেই ব্যক্তিগত সমৃদ্ধি সাধনের কারণে, উদার কার্যক্রমের সাথে যুক্ত ছিলেন যা অত্যন্ত ক্ষতিকর প্রকৃতির ছিল  এবং এটি বলা অযৌক্তিক নয় যে অন্যদের সাথে তিনিও ১৯৫৮ সালের শেষভাগে পাকিস্তানের বিপদজ্জনক পরিস্থিতির জন্য দায়ী ছিলেন।

জনাব সোহরাওয়ার্দী এবং তার মত মানুষের ভূমিকা একটি বড় ধরনের বিপর্যয়ের দ্বারপ্রান্তে দেশকে নিয়ে আসে যা  বিপ্লবের সূচনা করে।  বিপ্লবের স্মৃতিচারণা করতে গেলে বলতে হয় যে শিকড় শুরু হয়ে গিয়েছিল তা বৃক্ষের কান্ড তৈরি করে। এটি যে শুধু কান্ডই তৈরি করেছিল তা নয় বরং গত সাড়ে তিন বছর ধরে আরো ইতিবাচক অর্জনও ছিল।

এই সময়ের সর্বত্র এটা সরকারের স্বীকৃত নীতি কাউকে তার অতীতের অপকর্মের জন্য কাউকে শাস্তি বা দোষারোপ না করা যদিও কেউ কেউ  অপরাধমূলক সীমানা করে ফেলে  এবং এটি এই কারণে ছিল  যে এমনকি রাজনীতিবিদদের যাদের  EBDO ট্রাইব্যুনালস দ্বারা যাচাই করা হয়েছে তাদের উদারভাবে দেখা হয়েছে।  জনাব সোহরাওয়ার্দী তাদের অন্যতম।

কিন্তু জনাব সোহরাওয়ার্দীর এই উদারতাকে ভুল ভাবে দেখেন এবং তার উচ্চাকাঙ্ক্ষা কোন বাধা মানত না যে তিনি পাকিস্তানের নিরাপত্তা ও একতার প্রতি হুমকিস্বরূপ কর্মকান্ড অব্যাহত রাখেন। এটা  দু: খজনক  যে  তার বুদ্ধি ও অভিজ্ঞতাসম্পন্ন একজন একজন ভাল দেশপ্রেমিকের মত  দেশ বাঁচানোর পরিবর্তে  বিপ্লবের পরেও ধ্বংসাত্মক ভূমিকা পালন করছেন। জনাব সোহরাওয়ার্দী প্রকাশ্যে  দেশের বাইরে এবং মধ্যে পাকিস্তান বিরোধী উপাদানের সঙ্গে যুক্ত হয়েছেন।

এটা এমন পরিস্থিতি ছিল যে সরকার অনিচ্ছায় জনাব সোহরাওয়ার্দীকে যার সাম্প্রতিক অতীতের কার্যক্রম  পাকিস্তানের নিরাপত্তা ও সুরক্ষার জন্য বিপদজনক  হিসাবে রাষ্ট্রদ্রোহমূলক হিসেবে বর্ণনা করা যেতে পারে, এই জন্য আটকাদেশ করতে বাধ্য হয়েছে।